Sunday, April 21, 2024
No menu items!
HomeInternational newsআল শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি হামলায় ৪০০ জনের বেশি মানুষ নিহত হয়

আল শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি হামলায় ৪০০ জনের বেশি মানুষ নিহত হয়

আল শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি হামলায় ৪০০ জনের বেশি মানুষ নিহত হয়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

গাজার আল-শিফা হাসপাতালে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলায় ৪০০ জনেরও বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। গাজার মিডিয়া অফিসের মতে, ইসরায়েল হাসপাতালের রোগী, যুদ্ধে বাস্তুচ্যুত মানুষ এবং চিকিৎসাকর্মীসহ ৪০০ জনেরও বেশি মানুষকে হত্যা করেছে। ইসরায়েলি সেনারা ১৩ দিন ধরে সেখানে অভিযান চালাচ্ছে। খবর আল জাজিরার।

অক্টোবরের ৭ তারিখে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস ইসরায়েলের সীমান্তে ঢুকে অতর্কিত হামলা চালায়। এরপর গাজায় হামলা চালায় ইসরাইল। গাজার উত্তর, দক্ষিণ বা মধ্যাঞ্চলের কোনো এলাকাই ইসরায়েলি দখল থেকে রেহাই পায়নি। পুরো গাজা এখন ধ্বংসস্তূপের স্তূপ। সেখানকার অধিকাংশ মসজিদ, বাড়িঘর ও ভবন ধ্বংস হয়ে গেছে।

৭ই অক্টোবর থেকে, ইসরায়েলি হামলায় গাজায় কমপক্ষে ৩২,৭০৫ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছেন আরও ৭৫ হাজার ১৯০ জন।

এরই মধ্যে ইসরায়েলের কাছে বিলিয়ন ডলার মূল্যের বোমা ও যুদ্ধবিমান হস্তান্তরের অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। সংশ্লিষ্ট দুটি সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। যদিও ওয়াশিংটন আনুষ্ঠানিকভাবে ইসরায়েলের রাফাহ অভিযান নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে আসছে।

নতুন প্যাকেজের মধ্যে রয়েছে 1800 MK 2000 lb বোমা এবং 500 MK-42 500 lb বোমা। সূত্রটি ওয়াশিংটন পোস্টকে এ তথ্য জানিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র প্রতি বছর ইসরায়েলকে ৩.৮ বিলিয়ন ডলার সামরিক সহায়তা দেয়।

মার্কিন সামরিক সহায়তার খবর এমন এক সময়ে এসেছে যখন গাজায় ক্রমাগত বোমাবর্ষণের জন্য ইসরায়েল তীব্র আন্তর্জাতিক সমালোচনার মুখে পড়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র ইসরায়েলকে প্রতিরক্ষা সহায়তা অব্যাহত রেখেছে। এমন পরিস্থিতিতে কিছু ডেমোক্র্যাট এবং আরব আমেরিকান গ্রুপ বিডেন প্রশাসনের সমালোচনা করছে।

এদিকে, ইসরায়েলি হামলা শুরু হওয়ার পর থেকে লাখ লাখ ফিলিস্তিনি গাজার দক্ষিণাঞ্চলীয় রাফা শহরে আশ্রয় নিয়েছে। এটি মিশর সীমান্তবর্তী একটি এলাকা। ইসরায়েলি বাহিনী ইতিমধ্যেই উত্তর ও মধ্য গাজা ধ্বংস করেছে। আন্তর্জাতিক চাপ উপেক্ষা করে ইসরাইল এখন রাফাতে অভিযান চালানোর ঘোষণা দিয়েছে।

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু গাজায় হামাসের হাতে জিম্মি হওয়া সৈন্যদের পরিবারের সদস্যদের বলেছেন যে শুধুমাত্র সামরিক চাপই তাদের মুক্তি দিতে পারে। তিনি আরও বলেন, সেনাবাহিনী রাফাহতে অভিযানের প্রস্তুতি নিচ্ছে। আমরা ইতিমধ্যেই উত্তর গাজা এবং খান ইউনিস জয় করেছি, রাফাতে স্থল অভিযানের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

- Advertisment -
Google search engine

Most Popular

Trending Post